ফের অবৈধভাবে পাথর তুলতে গিয়ে নিহত ১, নিখোঁজ ৩

সিলেটের কোম্পানীগঞ্জে শাহ আরেফিন টিলায় কোয়ারি থেকে অবৈধভাবে পাথর উত্তোলনকালে গর্ত ধসে এক শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় এখনো তিন শ্রমিক নিখোঁজ রয়েছেন।

বৃহস্পতিবার (১০ জানুয়ারি) সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার শাহ আরেফিন টিলার কোয়ারিতে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত কাদির হোসেন (৩৫) উপজেলার লামনীগাঁও গ্রামের মৃত দুদু মিয়ার ছেলে। তবে, নিখোঁজ শ্রমিকদের পরিচয় জানা যায়নি।

স্থানীয়রা জানান, সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে শাহ আরেফিন টিলার কোয়ারিতে পাথর উত্তোলন করতে নামেন চার শ্রমিক। এরমধ্যে কবির হোসেন নামে এক শ্রমিককে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

গর্ত ধসে এক নিহত ও তিন শ্রমিক নিখোঁজের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন কোম্পানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তাজুল ইসলাম।

তিনি জানান, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গেছে। গর্তের মাটি অপসারণ করে নিখোঁজ কেউ আছেন কি না তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

উল্লেখ্য, গত সোমবার (৭ জানুয়ারি) শাহ আরেফিন কোয়ারিতে পাথর চাপায় নিহত হন দুই শ্রমিক। তারা হলেন- সুনামগঞ্জ সদরের হোসেনপুর গ্রামের আনোয়ার হোসেনের ছেলে সেলিম মিয়া (৩০) ও একই উপজেলার টুকেরগাঁওয়ের ওয়াজিদ আলির ছেলে নুরুল হক (২৫)। এ ঘটনায় নিহত সেলিম মিয়ার স্ত্রী বাদী হয়ে পাথর কোয়ারি মালিকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন।

মন্তব্য লিখুন :