নিষিদ্ধ ঘোষিত বিটকয়েন কেনাবেচা, গ্রেপ্তার ৩

ভার্চুয়াল মুদ্রা (বিটকয়েন) কেনাবেচা চক্রের তিন সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে বগুড়ার সাইবার পুলিশ।

শুক্রবার (২৬ এপ্রিল) বগুড়ার পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভূঞা নিজ কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান।

হবিগঞ্জ ও লক্ষ্মীপুর জেলায় দু’দিনব্যাপী অভিযান চালিয়ে চক্রের সদস্যদের গ্রেপ্তার করা হয়। এ সময় তাদের কাছ থেকে দু’টি ল্যাপটপ, ১৬টি মোবাইল ফোন ও ২০টি মিস কার্ড উদ্ধার করা হয়। সেই সঙ্গে তাদের ব্যবহৃত দু’টি ওয়েবসাইটের নিয়ন্ত্রণও নিয়েছে বগুড়ার সাইবার পুলিশ দল।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন- চক্রের হোতা হবিগঞ্জ জেলার মাধবপুর উপজেলার আন্দিউড়া গ্রামের মৃত শাহ মো. হিরণের ছেলে আহসান হাবিব ওরফে শাহ মো. তানিম (২২), একই এলাকার বাদশা মিয়ার ছেলে সোহেল মিয়া ওরফে কাজী সোহেল(২৭) ও লক্ষ্মীপুর জেলার রায়পুর উপজেলার বামনী গ্রামের বেলাল হোসেনের ছেলে মারুফ হোসাইন ওরফে মারুফ বিল্লাহ(২৫)।

বগুড়া সাইবার পুলিশের পরিদর্শক এমরান মাহমুদ তুহিনের নেতৃত্বে এই অভিযান পরিচালনা করা হয়। গ্রেপ্তারকৃতদের বিরুদ্ধে বগুড়া সদর থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভূঞা সংবাদ সম্মেলনে জানান, এই চক্র দীর্ঘদিন ধরে দুটি ওয়েবসাইটের মাধ্যমে অবৈধভাবে ভার্চুয়াল মুদ্রা লেনদেন করে আসছিল। ডিজিটাল এসব মুদ্রা ‘ক্রিপ্টোকারেন্সী’ নামে পরিচিত। এই পদ্ধতিতে অনলাইন জুয়া, কালো টাকা গোপন করাসহ বিদেশে অর্থ পাচার করা হয়।

তিনি জানান, গ্রেপ্তারকৃতদের ব্যবহৃত ওয়েবসাইটসহ বেশ কয়েকটি ওয়েবসাইটে নজরদারি করে দেখা যায় গত ৬ মাস ধরে ই-ট্রানজিকশন ব্যাপক জনপ্রিয় হয়ে উঠছে। এর প্রেক্ষিতে অবৈধ লেনদেনকারী এই চক্রকে শনাক্ত করতে বগুড়ার সাইবার পুলিশ মাঠে নেমে ওই তিনজনকে গ্রেপ্তার করে।

মন্তব্য লিখুন :