ডোমারে কলেজ শিক্ষককে মারধরের ঘটনায় আটক ৩

নীলফামারী জেলার ডোমার সরকারি ডিগ্রী মহাবিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের শিক্ষক সোলায়মান আলীকে মারধরের ঘটনায় কলেজের তিন ছাত্রকে গ্রেপ্তার করেছে ডোমার থানা পুলিশ। 

সোমবার (৯ সেপ্টেম্বর) দিনভর অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়। 

আটকদের আদালতের মাধ্যমে জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে।

আটককৃত ছাত্ররা হলেন-উপজেলার ডোমার সদর ইউনিয়নের বড়রাউতা গ্রামের আব্দুল মান্নানের ছেলে আল আমিন(১৭), পশ্চিম চিকনমাটি এলাকার নাজমুল হকের ছেলে আব্দুল হালিম(১৮) এবং পশ্চিম চিকনমাটি দোলাপাড়া গ্রামের নজরুল ইসলামের ছেলে নাজিমুল ইসলাম(১৭)। 

এরা সকলেই ডোমার সরকারী ডিগ্রী মহাবিদ্যালয়ের ছাত্র। গত ৭ সেপ্টম্বর ডোমার সরকারী কলেজের প্রভাষক সোলায়মান আলীকে কলেজের বখাটে ছাত্র শান্ত ও সৈকতের নেতৃত্বে প্রায় ২০ জনের একটি বখাটে দল শিক্ষক সোলায়মানকে মারধর করে। 

সেখানেও প্রকাশ্যে ছাত্র/ছাত্রীদের সামনে তারা শিক্ষককে মারধর করে। এ ঘটনায় শিক্ষকদের মাঝে তীব্র ক্ষোভ বিরাজ করছে। বখাটে ছাত্রদের শাস্তির দাবিতে ডোমার ও নীলফামারীতে মানববন্ধন করেছে বিভিন্ন কলেজের শিক্ষকরা। 

এ ঘটনায় শিক্ষক সোলায়মান মামলা করলে পুলিশ আসামিদের ধরতে রাতভর অভিযান পরিচালনা করছে। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা মোঃ রেজাউল করিম জানান, শিক্ষক মারধরের ঘটনায় এ পর্যন্ত তিনজন ছাত্রকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। বাকী আসামিদের ধরার জন্য অভিযান অব্যাহত রয়েছে। 

মন্তব্য লিখুন :