রয় ঝড়ে সব তছনছ

স্টিভ স্মিথের ৮৫ রানের দারুণ একটি ইনিংসের পরও সেমিফাইনালে লড়াই করার মতো যথেষ্ট পুঁজি গড়তে পারেনি অস্ট্রেলিয়া। এর মূল কারণ আদিল রশিদ আর ক্রিস ওকস। এই দুইজনের বিধ্বংসী বোলিংয়ে মাত্র ২২৩ রানে অলআউট হয়েছে অজিরা।

বৃহস্পতিবার (১১ জুলাই) বাংলাদেশ সময় বিকাল সাড়ে ৩টায় বার্মিংহামের এজবাস্টনে খেলাটি শুরু হয়।

অজিরা বড় ইনিংস গড়তে না পারলেও থেমে নেই ইংল্যান্ড। দুই ওপেনারের ঝড়ে ইতোমধ্যেই ম্যাচের নিয়ন্ত্রণ চলে গেছে তাদের হাতে। এখন শুধু সময়ের অপেক্ষা ইংলিশদের ফাইনালে যাওয়ার।

দুই ওপেনার বেয়ারস্টো আর জেসন রয় আজও ওপেন করেন। শুরুর দিকে দেখে শুনে খেলতে থাকেন তারা। তবে ক্রিজে সেট হতেই ব্যাট চালানো শুরু করেন রয়। ৫০ বলে তিনি পূর্ণ করেন নিজের হাফসেঞ্চুরি। এরপরই ধারণ করেন রুদ্রমূর্তি। পরের ১১ বলে ৩ ছয়ে করেন ৩০ রান। এতেই ম্যাচ থেকে ছিটকে যায় অজিরা।

ইংলিশদের প্রথম ফিফটি আসে ৬০ বল থেকে। কিন্তু পরের ফিফটি পূর্ণ হতে লাগে মাত্র ৩৫ বল। ১৮তম ওভারে মিচেল স্টার্কের শিকার হয়ে বেয়ারস্টো সাজঘরে ফেরেন। তবে এর আগে তিনি করেন ৪৩ বলে ৩৪ রান। তখন দলীয় স্কোর ছিল ১২৪।

শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত ১৮ ওভারে ইংল্যান্ডের সংগ্রহ ১ উইকেটে ১৪০। ৬৩ বলে ৮৪ রান নিয়ে মাঠে আছেন জেসন রয়।

মন্তব্য লিখুন :