‘খালেদা জিয়ার পরীক্ষা-নিরীক্ষার রিপোর্ট ভালো’

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বিএসএমএমইউ) পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল আবদুল্লাহ আল হারুন বলেছেন, মেডিকেল বোর্ডের মাধ্যমে চিকিৎসা শেষে খালেদা জিয়াকে ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে। তাঁর শারীরিক অবস্থা স্থিতিশীল। বর্তমানে পরীক্ষা-নিরীক্ষার রিপোর্ট ভালো।

বৃহস্পতিবার (৮ নভেম্বর) বেলা ১১টার দিকে চিকিৎসা শেষে মেডিকেল বোর্ডের মাধ্যমে বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে ছাড়পত্র দিয়ে কারাগারে পাঠিয়ে দেওয়ার পর সাংবাদিকদের এ কথা জানান তিনি।

আবদুল্লাহ আল হারুন বলেন, আমরা তাঁর শারীরিক সমস্যাগুলো চিহ্নিত করে চিকিৎসা দেওয়ার চেষ্টা করেছি। তাঁকে আবার আগের আবাসে ফিরিয়ে নেওয়া হয়েছে।

গত ১ মাস ধরে বিএসএমএমইউতে চিকিৎসাধীন আছেন খালেদা জিয়া। বৃহস্পতিবার (৮ নভেম্বর) সকাল সোয়া ১১টার পর তাকে বিএসএমএমইউ থেকে কারাগারের দিকে নিয়ে যাওয়ার প্রস্তুতি শুরু হয়। ১১টা ৩৫ মিনিটে খালেদা জিয়া কারাগারের অভ্যন্তরের আদালতে পৌঁছান। নাইকো দুর্নীতি মামলায় আদালতে হাজির করতে তাকে কারাগারে নিয়ে যাওয়া হয়।

দুপুর সোয়া ১টার সময় এ মামলার শুনানি শেষ হলে তাকে আবারও নাজিমউদ্দিন রোডের সাবেক কেন্দ্রীয় কারাগারে কারাগারে নেয়া হয়।

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া দুদকের দায়ের করা দুই মামলায় ১০ ও ৭ বছরের কারাদণ্ডে দণ্ডিত হয়েছেন। আপিলে জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় ৫ বছরের কারাদণ্ড বেড়ে ১০ বছর এবং জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় বিশেষ আদালতে ৭ বছরের কারাদণ্ডে দণ্ডিত হয়েছেন তিনি।

গত ৬ অক্টোবর চিকিৎসকদের পরামর্শে খালেদা জিয়াকে চিকিৎসার জন্য বিএসএমএমইউ হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে একটি মেডিকেল বোর্ডের অধীনে তার চিকিৎসা চলছিল।

মন্তব্য লিখুন :