চালকদের জন্য ডোপ টেস্ট বাধ্যতামূলক: মেয়র আতিক

ডোপ টেস্ট ছাড়া কোনো চালক মাঠে নামতে পারবেন না মন্তব্য করে মেয়র আতিকুল ইসলাম বলেছেন, চালকদের ডোপ টেস্ট বাধ্যতামূলক করার প্রাথমিক সিদ্ধান্ত হয়েছে। 

বৃহস্পতিবার (৪ এপ্রিল) দুপুরে ডিএনসিসির কনফারেন্স রুমে সরকারি অন্যান্য সংস্থার প্রতিনিধি ও ছাত্র-ছাত্রীদের মুখোমুখি হন মেয়র। বৈঠক শেষে মেয়র এসব কথা বলেন। 

মেয়র আরও বলেন, আমরা অনেকগুলো কাজ শুরু করেছি। তার মধ্যে লাল রং দিয়ে বাস স্টপেজ লেখা নিশ্চিত করা হবে। জেব্রা ক্রসিং, পুস বাটন ও ট্রাফিক সিগন্যাল ব্যবস্থা চালু করা হবে। এবার শুধু জেব্রা ক্রসিং নয়, ফ্লাস লাইট সিস্টেমও চালু হবে।

শিক্ষার্থীদের পক্ষ থেকে কয়েকটি দাবি তুলে ধরা হয়। এর মধ্যে অন্যতম ছিল, বিআরটিএ-কে দালালমুক্ত করা। চুক্তিভিত্তিক গাড়ি চালানোর পরিবর্তে চালকদের বেতন কাঠামোর আওতায় আনা, বাস স্টপেজ, রোড সাইন কার্যকর করা, গণ পরিবহনের সংখ্যা বাড়ানো, ছাত্র-ছাত্রীদের অর্ধেক ভাড়া নিশ্চিত করা, হালকা যানবাহনের লাইসেন্স নিয়ে ভাড়ি যানবাহন চালানোর ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ এবং ফুট ওভার ব্রিজ না করে জেব্রা ক্রসিং ব্যবহারে জোর দেওয়া।

এসব দাবির প্রেক্ষিতে বিআরটিএ চেয়ারম্যান মো. মশিউর রহমান বলেন, আমরা বিআরটিএ-কে দালালমুক্ত করতে এরই মধ্যে ব্যবস্থা নিয়েছি। আমরা ১৩ জন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগ করেছি। তারা সার্বক্ষণিকভাবে বিআরটিএ-তে কাজ করছেন এবং অনেক দালালকে শাস্তি দিয়েছেন।

সভায় উপস্থিত ছিলেন- ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মো. আব্দুল হাই, প্রধান প্রকৌশলী ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মুহাম্মদ যুবায়ের সালেহীন, অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক বিভাগ) মীর রেজাউল আলম, বিআরটিএ পরিচালক (রোড সেফটি) শেখ মোহাম্মদ মাহবুব-ই-রব্বানী প্রমুখ।

মন্তব্য লিখুন :