শপথ নেই কেউ ৩০ টাকার বেশি ইফতার খাব না: গয়েশ্বর

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেছেন, ভিত্তিহীন মামলায় দেশনেত্রী খালেদা জিয়া আজ কারাবন্দি। গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠার পক্ষে, মানুষের ভোটাধিকার নিশ্চিতের পক্ষে ও আইনের শাসনের পক্ষে কথা বলার কারণেই গণতন্ত্রের মাতা আজ কারাগারে। আন্দোলনের মাধ্যমে তাকে মুক্ত করতে হবে।

বুধবার রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের নিচতলায় ইফতার পূর্ব সংক্ষিপ্ত আলোচনায় তি‌নি এসব কথা বলেন।

ঢাকা জেলার দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ উপজেলা বিএনপি ও অঙ্গ- সহযোগী সংগঠনের ব্যানারে এই ইফতার হয়। এতে জনপ্রতি ৩০ টাকার ইফতার করার ঘোষণা দেন বিএনপি নেতারা। ‘দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে কারাবিধি মোতাবেক দেয়া ইফতার এর সঙ্গে সঙ্গতি রেখে ইফতার মাহফিল-২০১৯’ শিরোনামে এই কর্মসূচিতে এই ঘোষণা দেন নেতারা।

প্রধান অতি‌থির বক্তব্যে গয়েশ্বর রায় নেতাকর্মীদের উদ্দেশে বলেন, আপনাদের এই জনপ্রতি ৩০ টাকার ইফতার করার উদ্যোগ দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারপারম্যান তারেক রহমানের কাছে প্রশংসিত হয়েছে। শুধু কেরানীগঞ্জের নেতাকর্মী নয়, সারাদেশের নেতাকর্মীদের বলব, আমরা শপথ নেই আজ থেকে আমরা কেউ ৩০ টাকার বেশি ইফতার খাব না।

দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ উপজেলা বিএনপির সভাপতি অ্যাডভোকেট নিপুন রায় চৌধুরীর সভাপতিত্বে আরও বক্তব্য দেন- দলের সিনিয়র যুগ্মমহাসচিব রুহুল কবির রিজভী, যুগ্মমহাসচিব অ্যাডভোকেট সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, ঢাকা জেলা বিএনপির সভাপতি ডা. দেওয়ান সালাহউদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক খন্দকার আবু আশফাক, নাজিমউদ্দিন মাস্টার, অঙ্গ সংগঠনের নাজমুল হক অভি প্রমুখ।

নিপুন রায় চৌধুরী ঘোষণা দেন, আজ থেকে কেরানীগঞ্জের নেতাকর্মীরা জনপ্রতি ৩০ টাকার বেশি ইফতার খাবেন না।

মন্তব্য লিখুন :