করোনা চিকিৎসার জন্য প্রস্তুত হচ্ছে যেসব হাসপাতাল

বাংলাদেশে নতুন করে করোনাভাইরাস রোগী শনাক্ত হয়েছেন ১৮২ জন। এখন পর্যন্ত মোট শনাক্ত রোগী ৮০৩।

বাংলাদেশে মোট মারা গেছেন ৩৯ জন।

দেশে করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা লাফিয়ে বাড়ায় বেশকিছু সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। তার মধ্যে গুরুত্বপূর্ণ করোনা চিকিৎসার জন্য আলাদা হাসপাতাল প্রস্তুতকরণ।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক জানিয়েছেন, নতুন তিনটি কোয়ারেন্টিন সেন্টার তৈরি হচ্ছে একটি বসুন্ধরা কনভেনশন সেন্টার, নর্থ সিটি করপোরেশনের পুরোনো ভবন ও ডিয়াবাড়িতে পুরোনো ভবন।

নতুন হাসপাতাল নেয়ার কার্যক্রম শুরু হয়েছে।

বিশেষ করে বেসরকারি হাসপাতাল তালিকাভূক্ত করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন মন্ত্রী।

হাসপাতালে লাখ লাখ লোকের চিকিৎসা কোনো দেশ দিতে পারেনা বলছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক।

তিনি বলেন, প্রত্যেকটি জেলা মেডিকেল কলেজ ও বেসরকারি মেডিকেল কলেজকে করোনাভাইরাস চিকিৎসার অনুমতি দিচ্ছে সরকার। বেশ কয়েকটি হাসপাতাল প্রস্তুত করার ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে মুগদা, পঙ্গু হাসপাতালের পুরোনো অংশ ও বার্ণ ইউনিটে ৩ শত বেড আছে। বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি ভবন তৈরি করা হচ্ছে করোনাভাইরাসের চিকিৎসার জন্য।

মন্ত্রী আরও বলেন, বেসরকারি হাসপাতালগুলোর সাথে আলোচনা চলছে কোভিড-১৯ রোগীর চিকিৎসার জন্য, এর মধ্যে শাহাবুদ্দিন হাসপাতাল ও আনোয়ার খান মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল যোগ হচ্ছে।

এছাড়া জেলায় জেলায় বেসরকারি হাসপাতাল যোগ করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী।