এবার অ্যাপলকে বয়কট করার ঘোষণা চীনাদের

গুগল হুয়াওয়েকে বয়কটের পর এবার অ্যাপলকে বয়কটের সিদ্ধান্ত নিচ্ছে চীনারা। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে দেশটির অনেক নাগরিক ইতোমধ্যে তাদের সিদ্ধান্তের কথা জানাতে শুরু করেছে।

চীনা আইফোন ব্যবহারকারী যুক্তরাষ্ট্র ও চীনের মধ্যে বাণিজ্য যুদ্ধ চলাকালীন সময়ে এমন ঘোষণা দেওয়া শুরু করেছে। এরই মধ্যে নতুন করে মার্কিন জায়ান্ট গুগল হুয়াওয়ের সঙ্গে চুক্তি বাতিলের ঘোষণা দিয়েছে।

এ ঘোষণার পর থেকেই চীনা নাগরিক আরও বেশি পরিমাণে আইফোনসহ অ্যাপলের পণ্য বয়কটের ঘোষণা দিতে শুরু করেছে। দেশটির সামাজিক মাধ্যম সাইট উইবোতে ইতোমধ্যে এমন ঘোষণা ছড়িয়ে পড়েছে।

উইবোতে এক ব্যক্তি লিখেছেন, আমি চেয়েছিলাম এরপর স্মার্টফোন হিসেবে অ্যাপলের আইফোন কিনব। কিন্তু যুক্তরাষ্ট্রের এই অবস্থা চীনের পক্ষে মেনে নেওয়া সম্ভব নয়। আমি অ্যাপলকে বয়কট করছি।

গত বছরের মাঝামাঝি সময় থেকেই বাণিজ্য ক্ষেত্রে বিশেষ করে হুয়াওয়েকে কেন্দ্র করে যুক্তরাষ্ট্র ও চীনের মধ্যে যুদ্ধাবস্থা বিরাজ করছে।

যুক্তরাষ্ট্রের অভিযোগ, যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় নিরাপত্তার জন্য হুয়াওয়ের ডিভাইস হুমকি স্বরূপ। চীন এসব ডিভাইসের মাধ্যমে নজরদারী ও তথ্য হাতিয়ে নেওয়ার কাজ করছে। কিন্তু চীন এবং হুয়াওয়ে কর্তৃপক্ষ বিষয়টি অস্বীকার করে এসেছে।

অন্যদিকে বিশ্লেষকরা ধারণা করছেন, গুগলের হুয়াওয়ের সঙ্গে চুক্তি থেকে সরে যাওয়ার ফলে চীন- যুক্তরাষ্ট্র বাণিজ্য যুদ্ধ নতুন একটা মাত্রায় পৌঁছাবে। এই সিদ্ধান্তের ফলে হুয়াওয়ে এখন পশ্চিমা বাজারে তাদের অবস্থান হারাতে পারে। কেননা গুগলের এসব সেবা ছাড়া অনেকেই ফোন কিনতে চাইবেন না।

এদিকে চীনারা অ্যাপল পণ্য বয়কট করলে সেটি যুক্তরাষ্ট্রকে কতটা চাপে ফেলতে পারবে সেটা বলা মুশকিল। কেননা হুয়াওয়ে যদি যুক্তরাষ্ট্রে ব্যবসা করতে না পারে, তবে অ্যাপল স্বাভাবিকভাবেই সেখানে বড় বাজার দখল করবে। আর সেটা অ্যাপলের জন্য ‘শাপে বর’ হবে বলেও বিশ্লেষকরা মনে করছেন।

মন্তব্য লিখুন :