এরপরও কি আড়ালে থেকে যাবে লিটন?

লিটনের ভাগ্যটা একটু খারাপই বলা যায়। যখন রান খড়ায় ভুগছিলেন, নিয়মিত সমালোচনা শুনছিলেন তখন বিশ্বকাপের কথা মাথায় রেখে তাকে ফর্মে ফেরার জন্য বেশ কিছু ম্যাচে খেলার সুযোগ দেওয়া হলো। অথচ কি আশ্চর্য ঘটনাই ঘটে গেল লিটন কুমার দাসের সঙ্গে। যে ফর্মের জন্য খারাপ করার পরও খেলার সুযোগ দেওয়া হচ্ছিল সেই ফর্ম ফিরে পাওয়ার পর দলে সুযোগই পাচ্ছিলেন না!

বিশ্বকাপ শুরুর আগে আয়ারল্যান্ডে যে ত্রিদেশীয় ম্যাচ আয়োজন করা হয় তাতে খেলতে সুযোগ পেয়েছিলেন মাত্র একটি ম্যাচ। ১৫ মে অনুষ্ঠিত সে ম্যাচে ডাবলিনে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে সেই ম্যাচে ৭৬ রান করে তার প্রতি আস্থা রাখার বার্তা দিয়েছিলেন দলকে। তার প্রায় দুই সপ্তাহ পর ২৮ মে ভারতের সঙ্গে প্রস্তুতি ম্যাচে বাংলাদেশ হারলেও ৭৩ রানের অনবদ্য এক ইনিংস খেলেন লিটন। তাতেও ভাগ্য দেবী প্রসন্ন হলেন না লিটনের ওপর। বিশ্বকাপের প্রথম তিন ম্যাচে তাই বাংলাদেশের সাইড বেঞ্চেই বসে কাটাতে হলো লিটনকে।

তিনি যে সাইড বেঞ্চে বসে থাকার জন্য ইংল্যান্ড বিশ্বকাপে আসেননি তা প্রমাণের জন্য একটি সুযোগ দরকার ছিল লিটনের। প্রথম তিন ম্যাচে সে সুযোগ পেলেন না। প্রতি ম্যাচের আগেই দলের মূল একাদশে অন্তর্ভুক্ত হতে হতে কি এক কারণে যেন হয়ে উঠছিল না। আসলে উইনিং কম্বিনেশন ভাঙতে না চাওয়া আর টপ অর্ডারে তামিম, সৌম্য ও সাকিব ভালো করায় সে সুযোগ আরো ক্ষীণ হতে লাগল। তবে পরপর দুই ম্যাচে হেরে বাংলাদেশের সেমিফাইনাল স্বপ্ন টিকিয়ে রাখতে যে দলে পরিবর্তন আনে টিম ম্যানেজমেন্ট! আর তাতেই অবশেষে ভাগ্য প্রসন্ন হয় লিটন কুমার দাসের। 

দলে ফেরার সুযোগটি কি দারুণভাবেই না কাজে লাগালেন লিটন। ওয়েস্ট ইন্ডিজকে বধ করে সেমিফাইনালের স্বপ্নের পথে এগিয়ে যেতে আর সেই স্বপ্ন পূরণে সাকিবের সঙ্গে আজ কি দারুণ সঙ্গটাই না দিলেন লিটন কুমার দাস। সাকিবের সঙ্গে ১৩৫ বলে ১৮৯ রানের অপরাজিত জুটি দুর্দান্ত এক জয় ছিনিয়ে আনলো ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে। 

সাকিবরে ১২৪ রানের পাশাপাশি লিটন খেললেন ৯৪ রানের দুর্দান্ত এক ইনিংস। তিনি যে শুধু দলের সাইডবেঞ্চে বসে থাকার জন্য যে আসেননি তার শক্ত এক বার্তা রাখলেন ৬৯ বলে ৮ চার ও চার ছক্কায় ৯৪ রান করা লিটন কুমার দাস।

সাকিবকে সঙ্গে নিয়ে গড়েছেন বাংলাদেশের পক্ষে গড়েছেন রেকর্ড। চলতি বিশ্বকাপের সর্বোচ্চ পার্টনারশিপের (১৮৯ রান) রেকড গড়েছেন সাকিবকে সঙ্গে নিয়ে। বিশ্বকাপে বাংলাদেশের পক্ষে এখন সর্বোচ্চ রানের জুটিও এই দুইজনের। আজ (সোমবার) ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে এই রেকর্ড গড়েন লিটন ও সাকিব। সঙ্গে দেশের ইতিহাসেও চতুর্থ উইকেট জুটিতে সবচেয়ে বড় জুটির রেকর্ড গড়েছেন এই দুইজন। অনেকটাই নিশ্চুপ লিটন আজ অনেক প্রশ্নের উত্তর দিয়েছেন তার ব্যাট দিয়ে। সঙ্গে টিম বাংলাদেশকে এও বার্তা দিয়ে রেখেছেন দলের আস্থার প্রতিদান দিতে জানেন তিনি।


মন্তব্য লিখুন :