২০ ঘন্টা পর জ্ঞান হারালেন স্মিথ, অবস্থা আশঙ্কাজনক

২০১৪ নভেম্বরে শেফিল্ড শিল্ডের একটি ম্যাচে বাঁ-কানের পাশে আঘাত পেয়ে মাঠেই মৃত্যু হয় প্রাক্তন অস্ট্রেলীয় ওপেনার ফিল হিউজের। আবারও যেন সেই স্মৃতি ফিরছিল লর্ডসে। এবার বাউন্সারের শিকার অজি তারকা স্টিভ স্মিথ।

শনিবার ইংলিশ পেসার জফরা আর্চারের বাউন্সার আছড়ে পড়ে স্টিভ স্মিথের ঘাড়ে। আঘাত পাওয়ার পরেই মাঠে শুয়ে পড়েন স্মিথ। ৪৫ মিনিট বিশ্রাম নেওয়ার পরে ক্রিজে এসে আরও ১২ রান যোগ করে ৯২ রানে আউট হন স্মিথ। কিন্তু ব্যাটিং করতে অসুবিধা হচ্ছিল তাঁর। শনিবার সারা রাত পর্যবেক্ষণের মধ্যে থাকতে হয় স্মিথকে।

রবিবার অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দলের মেডিক্যাল টিম বিবৃতিতে বলে, আমাদের প্রতিনিধিরা সারা রাত ওর উপরে নজর রেখেছে। স্মিথের ঘুম খারাপ হয়নি। কিন্তু সকালের দিকে খুব একটা স্বাভাবিক ছিল না। হঠাৎই সংজ্ঞা হারায় স্মিথ। ওর ঝিমুনি ভাব এখনও রয়েছে।

এদিকে, সোমবার স্মিথের অবস্থার কিছুটা উন্নতি হলেও শঙ্কা কাটেনি এখনো। চিকিৎসকদের তত্ত্বাবধানেই রাখা হয়েছে তাকে।

ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার বিবৃতিতে বলা হয়েছে, চোট পাওয়ার দিন স্মিথের মধ্যে সমস্যা দেখা যায়নি। কিন্তু চোট পাওয়ার ২০ ঘণ্টা পরে লক্ষ্য করা যায় ও দুর্বল হয়ে পড়ছে। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে এ ধরনের সমস্যা আগেও দেখা যেত। আমরা ওকে সার্বক্ষণিক তত্ত্বাবধানে রেখেছি। আশা করি শিগগিরই সুস্থ হয়ে মাঠে ফিরবে।

মন্তব্য লিখুন :