‘আমার আট বছর ফিরিয়ে দাও’

বাড়ির দরজার সামনে বসে আছেন যুবক। পাশে প্ল্যাকার্ড, ‘আমার আট বছর ফিরিয়ে দাও’। তাঁকে ঘিরে বসে গিয়েছে মেলা।

জানা যায়, প্রেমিকার বিয়ের খবর পেয়ে ধর্নায় বসেছেন ভারতের আলিপুরদুয়ারের ওই যুবক। রবিবার প্রেমিকার বাড়ির সামনে ধর্নায় বসেন অনন্ত বর্মণ।

তার দাবি, মেয়েটির সঙ্গে তাঁর আট বছর ধরে সম্পর্ক। সম্পর্ক ভেঙে হঠাৎ কাউকে বিয়ে করে চলে যাওয়াটা ঠিক নয়। তার কথায়, যুবতীর বাড়ির লোকেরা সম্পর্ক মানতে নারাজ। মেয়ের অন্যত্র বিয়ে দিতে উদ্যোগী তারা। তাই এখন তিনি ওই তরুণীর সাথে কাটানো আট বছর ফেরত চান।

অনন্ত আরও দাবি করেন, তাঁর সঙ্গেই বিয়ে দিতে হবে মেয়েটির। তাঁর বাড়ির লোকেরাও সম্পূর্ণ ভাবে তাঁরই পাশে। এর মধ্যে সোমবার আলিপুরদুয়ার থেকে পাত্রের বাড়ির লোক মেয়েটির বাড়িতে আসেন। অনন্ত তাঁদের বাধা দেন। সব দেখে এলাকার মানুষ এগিয়ে আসেন। তাঁরা প্রেমিকযুগলকে মিলিয়ে দিতে উদ্যোগী হন। রাতে অনন্তের বাড়িতে মেয়েটিকে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে সিঁদুর পরিয়ে তাঁরা যান স্থানীয় কালী মন্দিরে। শাস্ত্র মেনে মন্দিরেই মালাবদল হয়।

জয় পাওয়ার পরে অনন্ত বলেন, ওর সঙ্গে আমার সম্পর্ক অনেক দিনের। আমরা দুজনেই খুশি।

মন্তব্য লিখুন :