এ কী বললেন ডোনাল্ড ট্রাম্প! (ভিডিও)

গোটা বিশ্ব তাঁর অদ্ভুত আচরণ ও ভঙ্গির সঙ্গে পরিচিত। গত বুধবারও এ ভাবেই তাঁর স্বভাবসিদ্ধ ভঙ্গির সাক্ষী থাকল গোটা বিশ্ব। যেই রোহিঙ্গাদের নিয়ে উদ্বেগে গোটা বিশ্ব ট্রাম্প জানেন না জাতিগত নিধনের শিকার হয়ে তারা কোথায় আশ্রয় নিয়েছেন।

নোবেল শান্তি পুরস্কারজয়ী নাদিয়া মুরাদ ১৭টি দেশের একটি প্রতিনিধি দল নিয়ে বুধবার মার্কিন প্রেসিডেন্টের সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলেন তারই অফিসে। রোহিঙ্গারা কীভাবে অত্যাচারিত হচ্ছে, আইএস জঙ্গিরা কীভাবে ইরাকে ইয়াজিদি মহিলাদের বন্দি বানাচ্ছে— এ সব সমস্যার কথা জানিয়ে ট্রাম্পের সাহায্য চাইতে গিয়েছিল প্রতিনিধি দলটি। 

রোহিঙ্গাদের হয়ে যিনি প্রতিনিধিত্ব করছিলেন তিনি ট্রাম্পকে বলেন, আমি বাংলাদেশের শরণার্থী ক্যাম্পের এক জন রোহিঙ্গা। শরণার্থীরা যত দ্রুত সম্ভব বাড়িতে ফিরতে চায়। এ ব্যাপারে কী ভাবে আমাদের সাহায্য করবেন আপনি?” তত্ক্ষণাৎ ট্রাম্প বলে ওঠেন, ওই শিবিরের অবস্থান ঠিক কোথায়? জবাবে ওই রোহিঙ্গা বলেন, ‘বাংলাদেশ রোহিঙ্গা ক্যাম্প’। পাশ থেকে মার্কিন প্রেসিডেন্টের এক সহযোগী ট্রাম্পকে বলেন, ‘বাংলাদেশ বার্মার (মিয়ানমার) পাশেই’।

এ ঘটনায় বিস্ময় সৃষ্টি হয়েছে এবং এ সংক্রান্ত একটি ভিডিও ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে। এ নিয়ে ট্রাম্পের যোগ্যতার প্রশ্ন তুলেছেন নেটিজেনরা।

আইএস জঙ্গিদের হাত থেকে পালিয়ে আসা ইয়াজিদি মহিলা নাদিয়া মুরাদ। তিনিও সেই প্রতিনিধি দলে ছিলেন। ইয়াজিদি মহিলাদের সমস্যার কথাই বলছিলেন ট্রাম্পকে। সেই সময় হঠাৎ ট্রাম্পকে বলতে শোনা যায়, আপনিই তো নোবেল পেয়েছিলেন তাই না! সত্যিই অসাধারণ। কিন্তু কিসের জন্য পেয়েছিলেন বলুন তো?

মার্কিন প্রেসিডেন্টের মুখে এমন কথা শুনে বেশ অস্বস্তিতে পড়েছিলেন নাদিয়া। একটু থেমে তার নোবেল পাওয়ার ব্যাখ্যাও দেন নাদিয়া!  সেই সঙ্গে ইয়াজিদি মহিলাদের সুরক্ষার জন্য আর্জিও জানান মার্কিন প্রেসিডেন্টের কাছে।


মন্তব্য লিখুন :