দিনে-দুপুরে র‍্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ যুবক নিহত

গাজীপুরে র‍্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ একজন নিহত হয়েছে। সে মাদক ব্যবসায়ী বলে দাবি র‍্যাবের।

মঙ্গলবার দুপুরে কড়ইতলা মণ্ডলবাড়ির কাছে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত ব্যক্তির নাম রাজিবুল ইসলাম (৩৩)। তিনি চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা উপজেলার দর্শনা বাসস্ট্যান্ড এলাকার আলী আহমেদের ছেলে।

জানা যায়, চুয়াডাঙ্গা থেকে প্রাইভেটকারে করে ফেনসিডিলের একটি চালান ঢাকায় নিয়ে যাচ্ছে কয়েকজন মাদক ব্যবসায়ী- এ সংবাদ পেয়ে র‌্যাব চেকপোস্ট বসিয়ে বিভিন্ন গাড়িতে তল্লাশি করতে থাকে। র‍্যাবের চেকপোস্টের খবর পেয়ে মাদক ব্যবসায়ীরা পথ পরিবর্তন করে ময়মনসিংহের ভালুকা হয়ে ঢাকার উদ্দেশে গাজীপুরের দিকে আসতে থাকে।

পরে র‌্যাব সদস্যরাও দ্বিতীয় দফায় চান্দনা চৌরাস্তা এলাকায় উল্কা সিনেমা হলের সামনে চেকপোস্ট বসিয়ে তল্লাশি শুরু করে। দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে ঢাকাগামী একটি প্রাইভেটকারকে তল্লাশি চৌকিতে থামার সংকেত দেন র‌্যাব সদস্যরা। কিন্তু সংকেত অমান্য করে র‍্যাবের তল্লাশি চৌকির ব্যারিকেড ভেঙে প্রাইভেটকারটি।

দ্রুত ইউটার্ন নিয়ে পুনরায় ময়মনসিংহের দিকে এগোতে থাকলে র‌্যাব সদস্যরা পিছু নিলে প্রাইভেটকারটি শ্রীপুরের মাওনা চৌরাস্তা এলাকা থেকে পথ পরিবর্তন করে কড়ইতলা মণ্ডলবাড়ির কাছে পৌঁছায়। এ সময় অস্ত্র হাতে এক যুবক প্রাইভেট কার থেকে নেমে কোম্পানি কমান্ডারকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে।

র‌্যাব সদস্যরাও পাল্টা গুলি ছোড়েন। এতে অস্ত্রধারী ওই যুবক গুলিবিদ্ধ হয়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়েন এবং ঘটনাস্থলেই নিহত হন। পরে তল্লাশি চালিয়ে র‌্যাব সদস্যরা ঘটনাস্থল থেকে চারটি গুলিসহ একটি রিভলবার, এক হাজার বোতল ফেনসিডিল ও একটি প্রাইভেটকার (ঢাকা মেট্রো-গ ১৭-৫৬৫২) জব্দ করেছে।