ইসলামপুরে যুবকের আত্মহত্যা

জামালপুরের ইসলামপুর উপজেলায় ফটিক ফকির (২১) নামে এক যুবক আত্মহত্যা করেছে। 


শনিবার (১৪ জানুয়ারি) দুপুরে ইসলামপুর থানা পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য জামালপুর শেখ হাসিনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করেছে। 


আত্মহত্যাকারী ওই যুবক উপজেলার চরগোয়ালিনী ইউনিয়নের কান্দারচর ফকিরপাড়া গ্রামের আলতাফুর ফকিরের ছেলে।


সরেজমিনে জানা যায়, গত বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত সাড়ে বারোটায় প্রতিবেশী হাজি মসর ফকিরের ছেলে মুকুল ফকিরের বসতবাড়ি থেকে একটি সেচ মোটর চুরি করার সময় হাতেনাতে ধরা পড়ে ফটিক ফকির এবং তার চাচাতো ভাই জসিম ফকির। এ নিয়ে গত শুক্রবার দিবাগত রাত সাড়ে এগারোটায় সেচ মটারের মালিক মুকুলের বাড়িতে এক সালিশ-বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। সালিশ-বৈঠকে ফটিক এবং জসিম সেচ মোটর চুরি করার কথা স্বীকার করলে গ্রাম্য মাতব্বরগণ বিষয়টি মিমাংসা করে দেন। সেচ মটার চুরি করার অপরাধে লোকসমাজে সালিশ-বৈঠকে বিচার করায় লজ্জিত হন ফটিক ফকির এবং জসিম ফকির। এক পর্যায়ে শুক্রবার দিবাগত রাতে বসতবাড়ির পাশে মেহগনি গাছের রশি বেঁধে ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে ফটিক ফকির। শনিবার ভোরে স্থানীয়রা গাছে ফটিক ফকিরের মৃতদেহ ঝুলে দেখে পুলিশকে খবর দেন।


নিহত ফটিক ফকিরের বাবা আলতুফুর ফকির বলেন, 'প্রতিদিনের মতো রাতে খাবার খেয়ে ঘুমাতে যায় ফটিক ফকির। ভোর বেলায় প্রতিবেশীদের কাছে আত্মহত্যার খবর পাই।'


পুলিশের ইসলামপুর সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার মো. সুমন মিয়া বলেন, 'আমি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। আত্মহত্যাকারীর মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। কী কারণে আত্মহত্যা করেছে তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।'