পুলিশ কাগজ চাওয়ায় মোটরসাইকেলে আগুন দিলেন যুবক

ট্রাফিক পুলিশ মোটরসাইকেলের কাগজপত্র দেখতে চাওয়ায় নিজের মোটরসাইকেল আগুন দিয়ে পোড়ানোর চেষ্টা করেছেন আনিছুর রহমান নামের এক সৌদি প্রবাসী।


মঙ্গলবার (৪ অক্টোবর) বিকেলে বরগুনার পাথরঘাটা উপজেলার কাকচিড়া ইউনিয়নের জালিয়াঘাটা এলাকায় এই ঘটনা ঘটে। মোটরসাইকেলের মালিক আনিছুর পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া উপজেলার তিতকাটার মুজিবুর মোল্লার ছেলে। তিনি ১৫-১৬ দিন আগে দেশে ফেরেন।


বাইক মালিক আনিছুর রহমান জানান, মঠবাড়িয়া থেকে কাকচিড়া হয়ে পাথরঘাটা আসার সময় ঝালিয়াঘাটা এলাকায় পৌঁছালে ট্রাফিক পুলিশ আমাকে মোটরসাইকেল থামাতে বলে এবং কাগজ দেখতে চায়। এ সময় সঙ্গে ড্রাইভিং লাইসেন্স না থাকায় আমি সব কাগজ দেখানোর জন্য কিছুটা সময় চাই। কিন্তু তিনি তাতে রাজি না হয়ে আমার কাছে টাকা চান।


তিনি আরও জানান, আমি তাকে এক হাজার টাকা দিলে তিনি আরও বেশি টাকা দাবি করেন। টাকা না দিলে গাড়ি থানায় নিয়ে যাবেন এবং বড় মামলা দেবেন বলেও হুমকি দেন। ট্রাফিক পুলিশ টাকা চাওয়ার কারণে আমি নিজের মোটরসাইকেলটি আগুন দিয়ে জ্বালিয়ে দেই।


তবে, অভিযুক্ত শাহ আলম টাকার বিষয়টি অস্বীকার করে বলেন, তার কাছে কোনো টাকা চাওয়া হয়নি। মোটরসাইকেলের কাগজপত্র দেখতে চাইলে তা না দিয়ে তিনি আগুন ধরিয়ে দেন। পরে পুলিশ ও স্থানীয়রা মিলে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনলেও মোটরসাইকেলটি আংশিক পুড়ে যায়। এরপর অতিরিক্ত পুলিশ সুপারের মধ্যস্থতায় বিষয়টি সমাধান করা হয়।