যে কারণে ভেঙেছিল শাহিদ-প্রিয়াঙ্কার প্রেম

বলিউডের সাবেক প্রেমিক-প্রেমিকা জুটি শাহিদ কাপুর ও প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। ২০০৯ সালে মুক্তি পাওয়া ‘কামিনে’ ছবিতে জুটি বেঁধেছিলেন তারা। সম্পর্কের সূত্রপাত সে ছবির শুটিং সেট থেকেই। এরপর ‘তেরি মেরি কাহানি’ ছবিতেও একসঙ্গে দেখা যায় দুজনকে। এটাই ছিল শাহিদ-প্রিয়াঙ্কার একসঙ্গে করা শেষ ছবি। কারণ এরপরই তাদের ব্রেকআপ হয়ে যায়।

কিন্তু কেন ভেঙেছিল এই দুই তারকার প্রেম। বলিউড সূত্রে খবর, সম্পর্কটা নিয়ে সিরিয়াস হলেও দুজনের ভাবনাচিন্তার খুব একটা মিল ছিল না। শাহিদ কাপুর ছিলেন ভীষণ দায়িত্বশীল এবং প্রাইভেট পার্সন। অন্যদিকে প্রিয়াঙ্কা ছিলেন অত্যন্ত ক্যাসুয়াল ও খোলামেলা। ২০১১ সালে ‘তেরি মেরি কাহানি’ ছবির শুটিং চলাকালীনই নাকি তাদের সম্পর্কের মধ্যে চিড় ধরতে শুরু করে।

বলিউডে গুঞ্জন, ওই সময় প্রিয়াঙ্কা নাকি বলিউডের অন্য এক জনপ্রিয় অভিনেতার সঙ্গে ঘনিষ্ঠ হয়ে পড়েছিলেন। প্রিয়াঙ্কার সঙ্গে ওই অভিনেতার ঘনিষ্ঠতা মেনে নিতে পারছিলেন না শাহিদ কাপুর। তিনি প্রিয়াঙ্কাকে ওই অভিনেতার সঙ্গে মেলামেশা করতে মানাও করেছিলেন। কিন্তু প্রিয়াঙ্কা সে কথা কানে তোলেননি। দুজনের মধ্যে এই নিয়ে বেশ কয়েকবার কথা কাটাকাটিও হয়।

প্রিয়াঙ্কা সে সময় বেশ কয়েকটি ভালো ছবি করে দ্রুত সিঁড়ি বেয়ে উপরে উঠতে শুরু করেন। অন্যদিকে শাহিদ কাপুর তখনও স্ট্রাগল করছিলেন বলিউডে নিজেকে সুপারস্টার হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করতে। দুজনের মধ্যের এই তফাতটা তাদের সম্পর্কের মাঝেও দূরুত্ব তৈরি করে দিয়েছিল বলে মনে করেন অনেকে।

বর্তমানে অবশ্য দুই তারকাই নিজেদের পরিবার নিয়ে খুশি। শাহিদ কাপুর নিজেকে যেমন সুপারস্টার হিসেবে বলিউডে প্রতিষ্ঠিত করে ফেলেছেন, তেমন মীরা রাজপুতকে বিয়ে করে আমোদে সংসারও করছেন। শাহিদের দুই সন্তান। অন্যদিকে প্রিয়াঙ্কাও মার্কিন পপ গায়ক নিক জোনাসকে বিয়ে করে সংসারী হয়েছেন।