নিষিদ্ধ হবেন মেসি-রোনালদোসহ বহু তারকা!

ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো, লিওনেল মেসিরা নিষিদ্ধ হচ্ছেন। রবিবারের পর থেকে দেখা দিয়েছে সে রকমই সম্ভাবনা। একটি নতুন ফুটবল লিগ গঠনের পর থেকেই ইউরোপীয় ফুটবলমহলে ব্যাপক তোলপাড় শুরু হয়েছে।

ফিফা, উয়েফা ছাড়াও নতুন লিগের তীব্র বিরোধিতা করেছেন বিভিন্ন দেশের প্রধানমন্ত্রী। উয়েফা হুঁশিয়ারি দিয়েছে, অবিলম্বে এই লিগের পরিকল্পনা বন্ধ না করা হলে নিজেদের প্রতিযোগিতা থেকে ক্লাবগুলিকে বহিষ্কার করবে তারা।

ফিফা জানিয়েছে, যে সব ফুটবলার এই প্রতিযোগিতায় খেলবেন, বিশ্বকাপ-সহ তাদের কোনও প্রতিযোগিতায় সেই ফুটবলারকে অংশগ্রহণ করতে দেওয়া হবে না।

রবিবারই ‘ইউরোপিয়ান সুপার লিগ’ নামে নতুন ফুটবল লিগের আত্মপ্রকাশ ঘটেছে। ইউরোপের তিন প্রধান ফুটবল খেলিয়ে দেশের মোট ১২টি ক্লাব এতে শামিল। স্পেন থেকে রয়েছে রিয়াল মাদ্রিদ, আতলেতিকো মাদ্রিদ এবং বার্সেলোনা। ইতালি থেকে ইন্টার ও এসি মিলান এবং জুভেন্টাস।

সব থেকে বেশি প্রতিনিধি ইংল্যান্ডের। সে দেশ থেকে রয়েছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড, ম্যানচেস্টার সিটি, আর্সেনাল, লিভারপুল, টটেনহ্যাম হটস্পার এবং চেলসি।

নতুন লিগের সভাপতি হয়েছেন রিয়ালের সভাপতি ফ্লোরেন্তিনো পেরেজ। চার জন সহ-সভাপতি রয়েছেন। নতুন লিগের দাবি, ক্লাবগুলির মধ্যে অর্থের সমান বন্টন করতে পারছে না উয়েফা। ফলে নিজেদের আর্থিক স্বার্থ দেখতে এবং সমর্থকদের কাছে আরও বেশি মনোগ্রাহী ফুটবল উপহার দিতে নতুন লিগ তৈরির সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তারা। মোট ২০টি ক্লাব এই লিগে খেলবে।

১২টির সঙ্গে আরও তিনটি ক্লাব যুক্ত হবে। বাকি পাঁচটি ক্লাব যোগ্যতা অর্জন করে আসবে। এই লিগের মালিক ১২টি ক্লাবই এবং যাবতীয় লাভের অর্থের বেশিরভাগ পাবে তারাই। খেলা হবে সপ্তাহের মাঝপথে। তবে এখনই সংশ্লিষ্ট ঘরোয়া লিগ ছেড়ে কোনও ক্লাবই বেরিয়ে আসতে চাইছে না। উল্লেখ্য, বায়ার্ন মিউনিখ বা প্যারিস সঁ জঁ-র মতো বড় ক্লাব এই লিগে এখনও যোগ দেয়নি।