করোনাভাইরাস একবার সারার পর আবার কি হতে পারে?

বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়েছে করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯)। ইতোমধ্যে ১৫০টিরও বেশি দেশে করোনার অস্তিত্ব শনাক্ত হয়েছে। করোনায় আক্রান্ত হয়ে প্রতিনিয়ত বাড়ছে মৃতের সংখ্যা। সোমবার পর্যন্ত বিশ্বে করোনায় নিহত হয়েছেন ৭১৬৫ জনের। এছাড়া এখন পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা ১ লাখ ৮২ হাজার ৫৫০। অপরদিকে, হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ৭৯ হাজার ৮৮১ জন।

এই ভাইরাস আতঙ্কের মধ্যে অনেকেরই প্রশ্ন, করোনাভাইরাস কারও একবার হলে আবার তার হওয়ার আশঙ্কা থাকে কি না। 

এ বিষয়ে বিশেষজ্ঞরা বলেছেন, ভাইরাস একবার যাদের আক্রমণ করে, তাদের কিছুটা সংক্রমণরোধী ক্ষমতা তৈরি হয়। এতে আবার তাদের সংক্রমণ ঘটনার ঘটনা বিরল।

দ্য গার্ডিয়ানের প্রতিবেদনে বলা হয়, গত মাসে জাপানের কর্তৃপক্ষ এক রোগীর করোনাভাইরাস থেকে সেরে ওঠার পর আবার ভাইরাস সংক্রমণের লক্ষণ জানালে এ নিয়ে উদ্বেগ তৈরি হয়। বিজ্ঞানীরা এই সংবাদ শুনে বিভ্রান্ত হয়ে পড়েছিলেন। তাঁরা যথেষ্ট অস্বস্তিতেও পড়েন।

যুক্তরাজ্যের লিডস ইউনিভার্সিটির ভাইরোলজি বিশেষজ্ঞ মার্ক হ্যারিস বলেন, জাপানের ওই ঘটনার ক্ষেত্রে পুনরায় রোগ সংক্রমণের ঘটনাটির মতো ঘটনা খুবই কম ঘটে।

অধ্যাপক হুইটি ব্যাখ্যা দিয়ে বলেন, রোগে দীর্ঘমেয়াদি প্রতিরোধ ক্ষমতা তৈরি না হলেও কিছুটা স্বল্পমেয়াদি ক্ষমতা তৈরি হয়।

জন কোহেন বলেন, অন্যান্য ভাইরাল সংক্রমণের ওপর ভিত্তি করে বলা যায়, একবার কেউ সংক্রমিত হলে তারা সাধারণত প্রতিরোধী হয়ে ওঠে এবং পরে আর তাদের সংক্রমণ ঘটে না। তবে সব সময় এর ব্যতিক্রম থাকবে। তবে এটি অবশ্যই যুক্তিসংগত প্রত্যাশা।