শনিবার ৭ ফুট উচ্চতার জলোচ্ছ্বাস হতে পারে

ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’ এর প্রভাবে  দেশের উপকূলীয় অঞ্চলে ৫ থেকে ৭ ফুট উচ্চতার জলোচ্ছ্বাস হতে পারে বলে আশঙ্কা করছে আবহাওয়া অফিস।

শুক্রবার সন্ধ্যায় রাজধানীর আবহাওয়া অফিসে আয়োজিত ব্রিফিংয়ে এ কথা বলেন আওবহাওয়া অধিদপ্তরের উপপরিচালক আয়েশা খাতুন।

আয়েশা খাতুন বলেন, ‘অতি প্রবল ঘূর্ণিঝড় বুলবুল আরো ঘণীভূত হয়ে উত্তর- উত্তর পূর্ব দিকে অগ্রসর হতে পারে। এটি আগামীকাল সন্ধ্যা নাগাদ বাংলাদেশের খুলনা উপকূল অতিক্রম করতে পারে সুন্দরবনের কাছ দিয়ে।’

তিনি আরো বলেন, ‘মোংলা ও পায়রা বন্দরকে ৭ নম্বর বিপদ সংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে।’

এদিকে শুক্রবার বিকেলে সচিবালয়ে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণমন্ত্রী ডা. মো. এনামুর রহমান জানান, উপকূলীয় আশ্রয়কেন্দ্রগুলোতে সর্বোচ্চ ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। তিনি বলেন, ‘১৩টি জেলার সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ছুটি বাতিল করে তাঁদের নিজ নিজ কর্মস্থলে থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’ আঘাত হানার সময় করণীয় বিষয়গুলো জানিয়ে মাইকিং করে সচেতনতামূলক বার্তা প্রচার করা হচ্ছে।

এর আগে আবহাওয়া অধিদপ্তর জানায়, বঙ্গোপসাগরের অভ্যন্তরে সৃষ্ট অতিপ্রবল ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’ ঘণ্টায় ১২৫ কিলোমিটার বেগে উপকূলের দিকে এগিয়ে আসছে। আগামীকাল শনিবার বিকেলের পর বাংলাদেশের উপকূলীয় এলাকায় আঘাত হানতে পারে।