আর বিরিয়ানি খেতে পারবেন না সরফরাজরা

পাকিস্তানের হেড কোচ ও প্রধান নির্বাচক হওয়ার পর ক্রিকেটারদের প্রতি কড়া বার্তা পাঠিয়ে দিলেন মিসবাহ উল হক। ফিটনেস কালচারে নতুনত্ব আনতে ন্যাশনাল ক্যাম্প ও ঘরোয়া টুর্নামেন্টে খেলোয়াড়দের খাদ্যাভ্যাসে ভারী খাবার পরিহার করার নির্দেশ দিয়েছেন তিনি।

জাতীয় ক্যাম্পে থাকা ক্রিকেটারদের জন্য বিরিয়ানি পুরোপুরি নিষিদ্ধ। পাশাপাশি তারা কী কী খেতে পারবেন, সেই নির্দেশিকাও দিয়েছেন মিসবাহ। লিগের ম্যাচে এবং লাহোরে জাতীয় ক্যাম্পের ক্রিকেটারদের কম তেলযুক্ত খাবারের পরামর্শ দিয়েছেন তিনি।

কায়েদ-ই-আজম ট্রফিতে খেলোয়াড়দের জন্য মুরগী জাতীয় সব খাবার বন্ধ করে বদলে ডাল, চাল, বারবিকিউ, পাস্তাজাতীয় খাবার খেতে বলেছেন তিনি। একইসঙ্গে ক্রিকেটারদের জন্য প্রচুর পরিমাণে ফল খাওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন মিসবাহ।

পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডকেও বিষয়টি জানিয়েছেন তিনি। ক্রিকেটারদের ফিটনেস ঠিক রাখতে প্রতিদিন গদ্দাফি স্টেডিয়ামে ফিল্ডিং কোচ গ্র্যান্ট ব্র্যাডবার্নের নির্দেশে অনুশীলন করাচ্ছেন মিসবাহ।

খেলোয়াড়ি জীবনে মিসবাহর ফিটনেস ছিল বেশ প্রশংসনীয়। যার ফলে তিনি ৪৩ বছর পর্যন্ত জাতীয় দলের হয়ে ক্রিকেট খেলেছেন। আর ৪৫ বছর পর্যন্ত ক্রিকেটে অবদান রেখে গেছেন। তাইতো কোচ হয়ে ফিটনেসের প্রতি তিনি শুরুতেই জোর দিচ্ছেন।