শীর্ষে ফেরার সুযোগ হারাল রিয়াল

লিগে চির প্রতিদ্বন্দ্বী দুই দলের পয়েন্ট পার্থক্য ছিল মাত্র এক। এমন অবস্থায় লেভান্তের মাঠে বার্সেলোনার হারে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে ফেরার সুযোগ তৈরি হয়েছিল রিয়াল মাদ্রিদের। কিন্তু তা কাজে লাগাতে পারল না জিনেদিন জিদানের দল। রিয়াল বেতিসের সঙ্গে ড্র করায় টেবিলের দ্বিতীয়স্থানেই থাকতে হচ্ছে তাদের।

লা লিগায় শনিবার রাতে লেভান্তের মাঠে খেলতে গিয়ে দ্বিতীয়ার্ধের ব্যর্থতায় ৩-১ গোলের হার নিয়ে ফেরে বার্সেলোনা। এদিন নিজেদের মাঠে বেতিসের সঙ্গে গোলশূন্য ড্র করে রিয়াল। ম্যাচটিতে জয় পেলেই চির প্রতিদ্বন্দ্বীদের টপকে শীর্ষে উঠে আসতো মাদ্রিদের ক্লাবটি। কিন্তু সুযোগটি কাজে লাগাতে পারেনি তারা।

এখন পর্যন্ত এগারো ম্যাচ খেলে সাত জয় ও এক ড্রয়ে ২২ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে বার্সেলোনা। সমান ম্যাচ খেলে ছয় জয় ও চার ড্রয়ে ২২ পয়েন্ট রিয়ালেরও। কিন্তু গোল ব্যবধানে পিছিয়ে থাকায় দ্বিতীয়স্থানে থাকতে হচ্ছে দলটিকে।

বেতিসকে হারাতে চেষ্টার কমতি ছিল না রিয়ালের। শুরু থেকেই ম্যাচে বল দখল ও আক্রমণে আধিপত্য দেখায় দলটি। গোলের উদ্দেশে নেয় ২২টি শট। এর মধ্যে লক্ষ্যে ছিল সাতটি শট। কিন্তু এর একটিও জালে জড়াতে পারেনি স্বাগতিক দলের খেলোয়াড়রা।

ম্যাচের অষ্টম মিনিটে অবশ্য জালে জড়িয়েছিলেন রিয়ালের বেলজিয়ান উইঙ্গার এডেন হ্যাজার্ড। কিন্তু ভিএআর দেখে অফসাইডের কারণে গোলটি বাদ করে দেন রেফারি।

বিরতির পর গোলের সুযোগ পেয়ে কাজে লাগাতে ব্যর্থ হন রিয়ালের ব্রাজিলিয়ান মিডফিল্ডার রদ্রিগো, ফরাসি ডিফেন্ডার ফেরলঁদ মঁদি ও বদলি ফরোয়ার্ড ভিনিসিউস জুনিয়র।

রিয়াল শিবিরে বেশ কয়েকবার ভীতি ছড়িয়েছে বেতিসও। দুই দুইবার দলকে শেষ মুহূর্তে রক্ষা করেছেন রিয়াল গোলকিপার থিবো কর্তোয়া। গোল শূন্যতায় শেষ হয় ম্যাচ।

বার্সেলোনার হার আর রিয়ালের ড্রয়ের রাতে শীর্ষে উঠে আসার সুযোগ ছিল আতলেতিকো মাদ্রিদেরও। কিন্তু সেভিয়ার মাঠে ১-১ গোলে ড্র করায় সেই আশা পূর্ণ হয়নি দিয়েগো সিমেওনের দলের। বারো ম্যাচে ২১ পয়েন্ট নিয়ে তৃতীয়স্থানে আছে তারা।