জমে উঠেছে রোনালদো-মেসির লড়াই

সিরি আ’তে নিজেতো ছুটছেনই, সঙ্গে জুভেন্টাসকে নিয়েও ছুটছেন ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো। তার জোড়া গোলে পারমাকে ২-১ গোলে হারিয়েছে ইতালিয়ান জায়ান্টরা।

তার মতোই দুর্দান্ত গতিতে ছুটছেন লিওনেল মেসিও। গ্রানাডার বিপক্ষে গোল করে দলকে রেখেছেন পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে।

ম্যাচের প্রথম গোলটি রোনালদোর কল্যাণেও এলেও তা এসেছে বিরতির ঠিক দুই মিনিট আগে। তবে পর্তুগিজ তারকার শট প্রতিপক্ষ খেলোয়াড়ের গায়েই লেগেই জড়িয়েছে জালে। পারমা অবশ্য ৫৫ মিনিটে একটি গোল শোধ দিয়ে ভড়কে দিয়েছিল জুভেন্টাসকে। গোলটি করেন কর্নেলিয়াস। তিন মিনিট বাদে সেই রোনালদোর গোলেই আবার অগ্রগামিতা ফিরে পায় জুভেন্টাস। আরেকটু হলে তিনি হ্যাটট্রিকও করে ফেলতেন দ্বিতীয়ার্ধে। কিন্তু গোলকিপার বরাবার সরাসরি শট নিয়ে ফেলায় ব্যর্থ হয়েছেন।

সিরি আ’তে টানা ৭ ম্যাচে গোল করে কীর্তি গড়েছেন এই ম্যাচে। জুভেন্টাসের হয়ে ২০০৫ সালের পর রোনালদোই প্রথম টানা ৭ ম্যাচে গোলের দেখা পেলেন। সর্বশেষ এমনটি করতে পেরেছিলেন ফরাসি দাভিদ ত্রেজেগি। এবারের মৌসুমে লীগে ১৬ ম্যাচে ১৪ গোল রোনালদোর।

এই মৌসুমে গোল করানো ছাড়াও গোল করাতেও জুড়ি নেই মেসির। অ্যাসিস্টের সংখ্যা-৬। ৬ অ্যাসিস্টে সেভিয়ার এভার বানেগা ও ভ্যালেন্সিয়ার রদ্রিওগার সঙ্গে যৌথভাবে দ্বিতীয় স্থানে তিনি।

আগামী জুনে ৩৩ বছর হবে মেসির। কিন্তু ক্যারিয়ারের পড়ন্ত বেলাতেও দিব্যি গোল করে চলেছেন। লা লিগার সর্বকালের শীর্ষ গোলদাতা গত তিন মৌসুমেই ইউরোপিয়ান ঘরোয়া লিগের সর্বোচ্চ গোলদাতা ছিলেন। এই মৌসুমে যেভাবে গোল করে চলেছেন, তাতে এবারও ইউরোপিয়ান গোল্ডেন শু, পিচিচি ট্রফি হাতে উঠতে পারে তার। এর মধ্যে গত তিন মৌসুমে পিচিচি ট্রফিও ঘরে তুলেছেন মেসি!

এবারের মৌসুমে ১৫ ম্যাচে ১৪ গোল মেসির। লা লিগায় এখন সবার উপরে তিনি।