বার্সেলোনার টার্গেট নেইমার-সালাহ, রিয়ালের পগবা-এমবাপ্পে

শেষ হয়ে গেছে ২০১৯-২০ মৌসুমের শীতের দলবদল। এবারের শীতে বড় কোনো দলবদলের ঘটনা ঘটেনি। সবচেয়ে বেশি মূল্যে ব্রুনো ফার্নান্দেজকে (৫৫ মিলিয়ন। দলে ভিড়িয়েছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। এছাড়া হাল্যান্ডকে ৪৬ মিলিয়নে কিনেছে বুরুসিয়া ডর্টমুন্ড।

স্পেনের দুই জায়ান্ট রিয়াল মাদ্রিদ ও বার্সেলোনা এবারের ট্রান্সফার উইন্ডোতে রুসার হিসেবে নাম লিখিয়েছে। দুইটি দলই বড় কোনো তারকাকে দলে ভেড়াতে সক্ষম হয়নি। তবে তারা সামনের গ্রীস্মের জন্য টার্গেট সেট করে রেখেছে।

বার্সেলোনা সামনের দলবদলে মূল টার্গেট করেছে নেইমার জুনিয়র ও মোহাম্মদ সালাহকে। বার্সেলোনা অনেকদিন ধরেই লুই সুয়ারেজের একজন বিকল্প খুঁজছে। তবে তারা এখনো কাউকে পায়নি। গোলডটকম বলছে, ৩৩ বছরের সুয়ারেজের বিকল্প হিসেবে তারা টার্গেট করেছে লিভারপুলের মোহাম্মদ সালাহকে।

তাকে দলে ভেড়াতে পারলে তারা ছেড়ে দেবে সুয়ারেজকে। অন্যদিকে, মেসির সময়ও ঘনিয়ে আসছে বার্সায়। তার বয়সটাও ৩৩ ছুঁইছুঁই। বিকল্প দরকার তারও। সেখানে তাদের প্রথম পছন্দ নেইমার জুনিয়র। মূলত সামনের গ্রীস্মে কাতালানদের মূল টার্গেট তিনি হবেন।

গত মৌসুমেও তাকে কেনার চেষ্টা করেছিল বার্সা। তবে পারেনি। এই তারকার জন্য ১২০ মিলিয়ন ও ৩ খেলোয়াড়কে দেয়ার প্রস্তাব দেয় বার্সা। তবে পিএসজি ৩০০ মিলিয়ন দাবি করে। ফলে ভেস্তে যায় দলবদল। তবে সামনের মৌসুমে নেইমারের দাম চলে আসবে ১৭০ মিলিয়নে। তাহলে তাকে ভেড়াতে কষ্ট করতে হবে না কাতালানদের।

এদিকে, রিয়াল মাদ্রিদও সামনের মৌসুমে সঙ্কটে পড়বে। ইতোমধ্যেই ফর্ম পড়তির দিকে লুকা মদ্রিচের। বয়সও ৩৫ হয়ে যাবে। তাই তার বিকল্প খুঁজছে রিয়াল। সেখানে তাদের পছন্দ পল পগবা। ইতোমধ্যেই জিদান জানিয়েছেন গ্রীস্মের দলবদলে তারা সর্বোচ্চ চেষ্টা করবে পগবাকে দলে ভেড়াতে। শোনা যাচ্ছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডও তাকে ছেড়ে দেবে।

এদিকে, তরুণ স্ট্রাইকারের খো৭জে নামবে রিয়াল। কারণ গ্যারেথ বেল ফর্ম হারিয়ে ভুগছে। তার জায়গায় নতুন কাউকে দলে টানবে তারা। সেটা যে এমবাপ্পে তা প্রায় নিশ্চিত। তবে সমস্যা একটি আছে। এই ফরাসি তারকাকে দলে ভেড়াতে বিরাট অঙ্ক গুণতে হবে রিয়ালকে। পরিমাণটা ৩০০ মিলিয়নের। এখন দেখা যাক কী হয়।