ড্রোন হামলার পর সৌদির তেল উৎপাদনে ধস


সৌদি আরবের তেলখনিতে ড্রোন হামলার পর উৎপাদনে বড়সড় ধস শুরু হয়েছে। দেশটির গণমাধ্যম জানিয়েছে, ইয়েমেনের হুথি বিদ্রোহীদের এই হামলায় তেল উৎপাদন প্রায় অর্ধেক কমে গেছে।
শনিবার (১৪ সেপ্টেম্বর) ড্রোন হামলার কারণে তেলখনির একটি এলাকায় সূর্যোদয়ের আগে বড় ধরনের অগ্নিকাণ্ডের সূচনা হয়। অনলাইনে ছড়িয়ে পড়া বাকিয়াকের একটি ভিডিওতে গুলিবর্ষণের শব্দ শোনা যায়। আকাশে ধোয়া ও জ্বলন্ত শিখা দেখা যায়।
গত কয়েক দশকে দেশটির তেলখনিতে এটাই সবচেয়ে বড় হামলা।
সৌদি সরকার জানিয়েছে, হামলার পর ৫.৭ মিলিয়ন ব্যারেল তেল উৎপাদন কমে যাচ্ছে। যা প্রায় দেশটির তেল সরবরাহের অর্ধেক। অর্থাৎ বৈশ্বিক হিসাবে কমে যাচ্ছে প্রায় ৬ শতাংশ।
আন্তর্জাতিক জ্বালানি সংস্থা জানিয়েছে, তারা ড্রোন হামলার পরবর্তী পরিস্থিতি গভীরভাবে পর্যবেক্ষণ করছে। এখন তেলের দাম বেড়ে যেতে পারে বলেও শঙ্কা করছেন তারা।