সভাপতির পদ হারিয়ে যা বললেন দিলীপ ঘোষ

পশ্চিমবঙ্গে রীতিমতো ঝড় যাচ্ছে বিজেপির ওপর দিয়ে। রাজ্য নির্বাচনে হারার পর তাদের একের পর এক নেতা যোগ দিচ্ছেন তৃণমূলে। সম্প্রতি বাবুল সুপ্রিয় আনুষ্ঠানিকভাবে তৃণমূলে যোগ দেন।

দলের নেতাদের ধরে না রাখার ব্যর্থতার দায় চেপেছিল দলটির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের উপর। যে কারণে পদই হারাতে হয়েছে তাকে।

পদ হারানোর পর প্রথমবারের মতো গণমাধ্যমকে দেওয়া প্রতিক্রিয়ায় ভারতের পশ্চিমবঙ্গের সদ্য সাবেক রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বলেছেন, ‌রাজ্যে এখন আমরা মুখ্য বিরোধী দলের ভূমিকা পালন করছি। রাজ্যে এখন পার্টি এগোচ্ছে। সাংগঠনিক পদে বদলের দরকারের কথা আমিই বলেছিলাম। খবর হিন্দুস্তান টাইমসের।

মঙ্গলবার দিলীপ ঘোষ বলেন, ৬ বছরের অভিজ্ঞতার ভিত্তিতে দল যে দায়িত্ব দেবে, সেই দায়িত্ব পালন করতে আমি প্রস্তুত।

বিজেপির নতুন রাজ্য সভাপতি হিসাবে দায়িত্বভার গ্রহণ করেন বালুরঘাটের সাংসদ সুকান্ত মজুমদার।

নতুন বিজেপির রাজ্য সভাপতিকে অভিনন্দন জানিয়ে দিলীপ ঘোষ বলেন, ‌রাজ্যে এখন আমরা মুখ্য বিরোধী দলের ভূমিকা পালন করছি। রাজ্যে এখন পার্টি এগোচ্ছে। এই জায়গায় দাঁড়িয়ে সংগঠনের সমস্ত জায়গায় নতুন মুখ আনা প্রয়োজন। নেতৃত্বের ক্ষেত্রেও পরিবর্তন দরকার আছে। আমিই বলেছিলাম নেতৃত্ব বদল করার কথা।’‌ একইসঙ্গে তিনি জানান, ‘‌ছ'বছর আমি বিজেপি সভাপতির পদে ছিলাম। ছ'বছরের অভিজ্ঞতার উপর ভিত্তি করে দল যে দায়িত্ব দেবে আমি সেই দায়িত্বই পালন করব।’‌

রাজ্যের প্রাক্তন বিজেপি সভাপতিকে বিজেপির সর্বভারতীয় সহ-সভাপতির দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে।